বৃহস্পতিবার, আগস্ট ১১, ২০২২

কলারোয়া নিউজ

প্রধান ম্যেনু

সাতক্ষীরার সর্বাধুনিক অনলাইন পত্রিকা

‘ত্রুটিপূর্ণ আইনের কারণে মামলা বেড়ে যাচ্ছে’

প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহা বলেছেন, বিচার বিভাগের যে দায়িত্ব, কর্তব্য তাতে হস্তক্ষেপ না করা হলে, বিচার বিভাগকে বিচার বিভাগের মতো কাজ করতে দিলে আজ এই হাজার হাজার মামলার জট থাকতো না। দেশের আইন, প্রশাসন ও বিচার বিচার বিভাগের মধ্যে বিচার বিভাগ ব্যলেন্স রক্ষা করে চলে। যদিও সবসময় বিচার বিভাগকে দমিয়ে রাখার চেষ্টা করা হয়। দেশের ক্রান্তিকালে বিচার বিভাগই দেশকে রক্ষা করে। সংবিধান রক্ষা করে। তাই আইনের সাথে যারা জড়িত তারা যদি সামান্য বিচ্যুত হয়, তা হলে সেই দেশের ভবিষ্যত অন্ধকার।

বৃহস্পতিবার রাতে মৌলভীবাজার আইনজীবী সমিতি আয়োজিত বার্ষিক ভোজ সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে প্রধান বিচারপতি এসব কথাগুলো বলেন।

প্রধান বিচারপতি সাম্প্রতিক সময়ে তার বিভিন্ন বিষয়ে বক্তব্য নিয়ে সমালোলোচনার জবাবে বলেন, আমি একটিও কথা বলতে চাইনা। কিন্তু বিচার করতে গেলেই আমরা খেই হারিয়ে ফেলি। কোন আইন আমরা ঠিকমতো পাচ্ছি না। প্রত্যেকটা আইন ত্রুটিপূর্ণ। এই ত্রুটিপূর্ণ আইন হওয়ায় মামলা বেড়ে যাচ্ছে। আইন প্রণেতারা সঠিকমতো তাদের দায়িত্ব পালন করতে পারছেন না। উদাহরণ টেনে তিনি বলেন, গত ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে আইনের ত্রুটির কারণে হাজার হাজার রিট ফাইল হয়েছে। আইন প্রণেতারা যদি দায়িত্বটা সঠিকভাবে পালন করতেন তবে বিচার বিভাগের উপর এই দায়িত্ব আসতো না। বিচার বিভাগের যে দায়িত্ব, কর্তব্য তাতে হস্তক্ষেপ না করা হলে, বিচার বিভাগকে বিচার বিভাগের মতো কাজ করতে দিলে আজ এই হাজার হাজার মামলার জট থাকতো না।

তিনি এই সময একজন আইনজীবীর প্রশ্নের জবাবে বলেন বার কাউন্সিলের পরীক্ষার বিলম্বের কারণ বার কাউন্সিল তাদের দায়িত্ব সঠিকভাবে পালন করতে পারছেন না। নিউট্রেলিটি বজায় রাখতে পারছেন না। এটি বিচারকদের দেখতে হচ্ছে। এটি বিচার বিভাগের উপর বাড়তি চাপ। এই পরীক্ষা বিজ্ঞ আইনজীবিরা নেয়ার কথা ছিল। তিনি আহবান জানান আগামী বার কাউন্সিলে সঠিক নেতৃত্ব নির্বাচন করার। যাতে তারা তাদের দায়িত্ব সঠিকভাবে পালন করতে পারেন।

এই সময় প্রধান বিচারপতি জানান, কয়েকটি আদালত ডিজিলাইটেশন করায় বিচার কাজে সময় লাগছে কম। আগের চাইতে এক চতুর্থাংশ সময় লাগছে। সারা দেশে এটি করা গেলে ভাল ফলাফল পাওয়া যাবে। তাই এই ক্ষেত্রে সরকারে প্রশাসনে সহযোগিতার দরকার। তিনি এই সময় বলেন আগামী এক বৎসরের মধ্যে কোর্টের স্বল্পতা, বিচারক স্বল্পতা এবং ইনফাস্ট্রাকচার সমস্যার সমাধান হবে। এইসব সমস্যার সমাধান তার মেয়াদ কালের মধ্যেই করবেন বলে অঙ্গিকার করেন তিনি।

মৌলভীবাজার জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি কামাল উদ্দিন আহমদ চৌধুরীর সভাাপতিত্বে এবং সাধারণ সম্পাদক কামরুল আহমদ চৌধুরীর সঞ্চালনোয় এই ভোজসভায় বক্তব্য রাখেন মৌলভীবাজার-৩ আসনের এমপি সৈয়দা সায়রা মহসিন, হাইকোর্টের রেজিস্ট্রার সৈয়দ দিলজার আহমদ, মৌলভীবাজার জেলা ও দায়রা জজ শফিকুল ইসলাম, সিলেট জেলা ও দায়রা জজ মনির আহমদ পাটোয়ারী, সিলেট মহানগর দায়রা জজ আকবর হোসেন মৃধা, চীফ জ্যুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট একিউ এম নাসির উদ্দিন, জেলা প্রশাসক তোফায়েল ইসলাম, পুলিশ সুপার শাহজালাল, সাবেক প্রতিমন্ত্রী ও আইনজীবী এবায়দুর রহমান,সিনিয়র আইনজীবি শান্তিপদ ঘোষ, সিনিয়র আইনজীবী মুজিবুর রহমান মুজিব প্রমুখ।

একই রকম সংবাদ সমূহ

‘ভোমরা স্থলবন্দরকে পূর্ণাঙ্গ বন্দর করা হবে’ : নৌ-পরিবহন প্রতিমন্ত্রী

সাতক্ষীরা ভোমরা স্থলবন্দর উন্নয়ন ও পরিচালনা গতিশীলতা আনয়নের নিমিত্ত গঠিতবিস্তারিত পড়ুন

টিকাদানের সাফল্যে ‘ভ্যাকসিন হিরো’ পেলেন প্রধানমন্ত্রী

টিকাদানের সাফল্যে ‘ভ্যাকসিন হিরো’ পেলেন প্রধানমন্ত্রী। বাংলাদেশে টিকাদান কর্মসূচি একটিবিস্তারিত পড়ুন

সর্বজনীন স্বাস্থ্য কর্মসূচির অগ্রগতি ত্বরান্বিত করার আহ্বান

জাতিসংঘের ৭৪তম সাধারণ পরিষদের অধিবেশনে যোগ দিতে নিউ ইয়র্কে এসেবিস্তারিত পড়ুন

  • রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন প্রক্রিয়ায় যুক্ত হচ্ছে চীন
  • ইউপি নির্বাচন : চেয়ারম্যান-মেম্বারদের শিক্ষাগত যোগ্যতার বিষয়টি ‘গুজব’
  • বাংলাদেশের নর্দান ইউনিভার্সিটি ও কানাডার কর্টলার ইন্টারন্যাশন্যাল, রেসিন্ট ইন্টারন্যাশন্যালের মধ্যে সমঝোতা চুক্তি
  • চতুর্থ ড্রিমলাইনার ‘রাজহংস’ উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী
  • প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ৩৭টি পদক লাভ
  • ড. কালাম ‘এক্সিলেন্স এওয়ার্ড’ গ্রহণ করেই দেশবাসীকে উৎসর্গ করলেন প্রধানমন্ত্রী
  • তৃণমূল থেকে সংগঠনকে গড়ে তুলতে হবে: প্রধানমন্ত্রী
  • মোবাইল ছিনতায়কারীকে দৌড়ে ধরলেন ম্যাজিস্ট্রেট
  • কয়েক ঘণ্টার মধ্যে শোভন-রাব্বানির ভাগ্য নির্ধারণ
  • পরিকল্পিতভাবে উন্নয়ন পরিকল্পনা গ্রহণ করতে হবে : প্রধানমন্ত্রী
  • পুলিশের ব্যাংকের যাত্রা শুরু
  • বিএনপি অর্থ-সম্পদ অর্জনে বেশি ব্যস্ত ছিল: প্রধানমন্ত্রী