মঙ্গলবার, ফেব্রুয়ারি ৭, ২০২৩

কলারোয়া নিউজ

প্রধান ম্যেনু

সাতক্ষীরার সর্বাধুনিক অনলাইন পত্রিকা

কলারোয়ার হরিদাস ঠাকুর জন্মভিটায় বিজিবি-বিএসএফের শীর্ষ কর্তারা : সোনাই নদীতে ঘাটের অনুমোদন

সৌহাদ্য ও আন্তরিকতাপূর্ণ পরিবেশে বাংলাদেশ-ভারতের সীমান্তরক্ষী বাহিনীর শীর্ষ কর্মকর্তারা পরিদর্শন করলেন সাতক্ষীরার কলারোয়ার শ্রীশ্রী ব্রক্ষ্ম হরিদাস ঠাকুরের জন্মভিটা আশ্রম ও মন্দির। শনিবার সকাল ৯টার দিকে উপজেলার ৫নং কেঁড়াগাছি ইউনিয়নের সীমান্তবর্তী সোনাই নদীর তীরঘেষা এ আশ্রম ভিটার মনোরম পরিবেশে মিলিত হন দু’দেশের বিজিবি-বিএসএফ’র কর্তারা।
সেখানে বিজিবি’র পক্ষে নেতৃত্ব দেন খুলনা সেক্টর কমান্ডার মোহাম্মদ ওয়াহিদুর রহমান পিএসসি আর বিএসএফ’র পক্ষে নেতৃত্ব দেন কোলকাতা বিএসএফ’র সেক্টর কমান্ডার ডিআইজি মৃদুল সোনোয়াল।
সনাতন হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের এ তীর্থস্থানটি ভক্তদের কাছে এমনই মিলনস্থল যে সেখানে ভৌগলিক সীমারেখা অত্যন্ত নগণ্য। আর তাই যবন হরিদাস ঠাকুরের বাংলাদেশ-ভারতের অনেক ভক্তরা বিভিন্ন অনুষ্ঠান পার্বনে সমবেত হন ওই স্থানে। হরিদাস ঠাকুরের জন্মভিটা আশ্রম-মন্দিরের তীরঘেষা আন্তর্জাতিক সীমান্ত নদী সোনাই এর তীরে পাঁকা ঘাট বা সিড়ি বা সান তৈরির গুরুত্ব ছিলো বহুদিনের। সেই লক্ষ্যে বিজিবি-বিএসএফর সেক্টর কমান্ডার পর্যায়ের শীর্ষ কর্মকর্তারা আনুষ্ঠানিক অনুমোদন কপি হস্তান্তর করেন।
সেখানে সোনাই নদীর ধারে ৩০ফুট বাই ২০ ফুটের একটি ঘাট ও দুই ধারে পাইলিং কাজের অনুমোদন সম্বলিত স্বাক্ষর করে পরষ্পরকে হস্তান্তর করেন বিজিবির খুলনা সেক্টর কমান্ডার মোহাম্মদ ওয়াহিদুর রহমান পিএসসি ও বিএসএফের কোলকাতা সেক্টর কমান্ডার ডিআইজি মৃদুল সোনোয়াল।
এর আগে বিএসএফ’র শীর্ষ কর্মকর্তারা কলারোয়ার হরিদাস ঠাকুর আশ্রম ভিটা-মন্দিরে পৌছুলে তাঁদের গার্ড অব অনার প্রদান করেন বিজিবির একটি চৌকস দল। কর্মকর্তারা এসময় জন্মভিটা আশ্রম-মন্দির এলাকা ঘুরে ঘুরে পরিদর্শন করেন।
বিজিবি-বিএসএফ’র শীর্ষ কর্তারা সেখানে পৌছুলে তাদের ফুলেল স্বাগত জানান শ্রীশ্রী হরিদাস ঠাকুর জন্মভিটা আশ্রম ও মন্দিরের সভাপতি অধ্যাপক কার্তিক চন্দ্র মিত্র ও সাধারণ সম্পাদক সন্দিপ রায়ের নেতৃত্বে কমিটির সদস্যরা।
এ উপলক্ষ্যে আয়োজিত বর্ণাঢ্য অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন খুলনা সেক্টর কমান্ডার মোহাম্মদ ওয়াহিদুর রহমান পিএসসি, সাতক্ষীরা, ৩৮ বিজিবির কমান্ডিং অফিসার আরমান হোসাইন পিএসসি, খুলনা সেক্টর হেড কোয়ার্টারের অতিরিক্ত পরিচালক আনিছুর রহমান, কলারোয়ার কাকডাঙ্গা বিওপির কোম্পানি কমান্ডার মিজানুর রহমান, কলারোয়া পৌরসভার সহকারী প্রকৌশলী ওয়াজিহুর রহমান, কোলকাতা বিএসএফ’র সেক্টর কমান্ডার ডিআইজি মৃদুল সোনোয়াল, ৭৬ বিএসএফের কমান্ডেন্ট শ্রী নারেন্দ সিং, কোলকাতা হেড কোয়ার্টার বিএসএফের কমান্ডেন্ট এমকে বারনওয়াল, ৭৬ বিএসএফের ডেপুটি কমান্ডেন্ট নিজামুদ্দীন, এসিসট্যান্ট কমান্ডেন্ট মনোজ কুমার, কোলকাতা বিএসএফ’র প্রকৌশলী শ্রী রাজেশ বি।
এছাড়া আরো উপস্থিত ছিলেন- শ্রীশ্রী হরিদাস ঠাকুর জন্মভিটা আশ্রম ও মন্দিরের সভাপতি অধ্যাপক কার্তিক চন্দ্র মিত্র, সাধারণ সম্পাদক সন্দিপ রায়, কলারোয়া উপজেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি মনোরঞ্জন সাহা, সাধারণ সম্পাদক সিদ্ধেশ্বর চক্রবর্তী, স্থানীয় কেঁড়াগাছি ইউপি চেয়ারম্যান আফজাল হোসেন হাবিলসহ স্থানীয় সুধিজনেরা।

একই রকম সংবাদ সমূহ

‘ভোমরা স্থলবন্দরকে পূর্ণাঙ্গ বন্দর করা হবে’ : নৌ-পরিবহন প্রতিমন্ত্রী

সাতক্ষীরা ভোমরা স্থলবন্দর উন্নয়ন ও পরিচালনা গতিশীলতা আনয়নের নিমিত্ত গঠিতবিস্তারিত পড়ুন

টিকাদানের সাফল্যে ‘ভ্যাকসিন হিরো’ পেলেন প্রধানমন্ত্রী

টিকাদানের সাফল্যে ‘ভ্যাকসিন হিরো’ পেলেন প্রধানমন্ত্রী। বাংলাদেশে টিকাদান কর্মসূচি একটিবিস্তারিত পড়ুন

সর্বজনীন স্বাস্থ্য কর্মসূচির অগ্রগতি ত্বরান্বিত করার আহ্বান

জাতিসংঘের ৭৪তম সাধারণ পরিষদের অধিবেশনে যোগ দিতে নিউ ইয়র্কে এসেবিস্তারিত পড়ুন

  • রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন প্রক্রিয়ায় যুক্ত হচ্ছে চীন
  • ইউপি নির্বাচন : চেয়ারম্যান-মেম্বারদের শিক্ষাগত যোগ্যতার বিষয়টি ‘গুজব’
  • বাংলাদেশের নর্দান ইউনিভার্সিটি ও কানাডার কর্টলার ইন্টারন্যাশন্যাল, রেসিন্ট ইন্টারন্যাশন্যালের মধ্যে সমঝোতা চুক্তি
  • চতুর্থ ড্রিমলাইনার ‘রাজহংস’ উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী
  • প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ৩৭টি পদক লাভ
  • ড. কালাম ‘এক্সিলেন্স এওয়ার্ড’ গ্রহণ করেই দেশবাসীকে উৎসর্গ করলেন প্রধানমন্ত্রী
  • তৃণমূল থেকে সংগঠনকে গড়ে তুলতে হবে: প্রধানমন্ত্রী
  • মোবাইল ছিনতায়কারীকে দৌড়ে ধরলেন ম্যাজিস্ট্রেট
  • কয়েক ঘণ্টার মধ্যে শোভন-রাব্বানির ভাগ্য নির্ধারণ
  • পরিকল্পিতভাবে উন্নয়ন পরিকল্পনা গ্রহণ করতে হবে : প্রধানমন্ত্রী
  • পুলিশের ব্যাংকের যাত্রা শুরু
  • বিএনপি অর্থ-সম্পদ অর্জনে বেশি ব্যস্ত ছিল: প্রধানমন্ত্রী